বুধবার, ০৫ অক্টোবর ২০২২, ১১:৪৩ পূর্বাহ্ন

বঙ্গবন্ধুকন্যাকে বন্দী করার মাধ্যমে গণতন্ত্রের পায়ে শিকল পরানো হয়েছিল।

অনুভূতি টিভি অনলাইন ডেক্স।
  • আপডেট টাইম : রবিবার, ১৭ জুলাই, ২০২২
  • ১০০ বার পঠিত

তৎকালীন তত্ত্বাবধায়ক সরকার দ্বারা বঙ্গবন্ধুকন্যাকে বন্দী করার মাধ্যমে গণতন্ত্রের পায়ে শিকল পরানো হয়েছিল- তথ্য ও সম্প্রচার মন্ত্রী

তথ্য ও সম্প্রচার মন্ত্রী ড. হাছান মাহমুদ এমপি বলেন, বঙ্গবন্ধুকন্যা শেখ হাসিনা যার ধ্বমনীতে ও শীরায় বঙ্গবন্ধুর রক্তস্রোত প্রবাহমান, সে রক্ত আপোষ জানেনা পরাভুক মানেনা, অন্যায়ের বিরুদ্ধে সবসময় প্রতিবাদ করে। তৎকালীন তত্ত্বাবধায়ক সরকার কতৃক যে অন্যায় কাজগুলো হচ্ছিল তার বিরুদ্ধে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা প্রতিবাদ করেছিলেন। সে সময় বিএনপি কোন প্রতিবাদ করেনি। তাই তত্ত্বাবধায়ক সরকার ২০০৭ সালের ১৬ জুলাই খালেদা জিয়াকে বন্দী না করে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনাকে গ্রেপ্তার করেছিল। সেদিন শুধুমাত্র একজন ব্যক্তি শেখ হাসিনাকে গ্রেপ্তার করা হয়নি, বঙ্গবন্ধুকন্যাকে গ্রেপ্তার করে গণতন্ত্রের পায়ে শিকল পরানো হয়েছিল।

আজ প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার কারাবরণ দিবস উপলক্ষে চট্টগ্রাম থিয়েটার ইনস্টিটিউটে চট্টগ্রাম মহানগর আওয়ামী লীগ আয়োজিত আলোচনা সভায় উপস্থিত হয়ে ড. হাছান মাহমুদ এমপি এসব কথা বলেন।

ড. হাছান মাহমুদ এমপি বলেন, বঙ্গবন্ধুকন্যা প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা কারাগারে থেকেও দলকে যেভাবে পরিচালনা করেছিলেন সেটি অভাবনীয়। তিনি কারাগারে বসেই পরিকল্পনা করেছিলেন কিভাবে দেশকে পরিচালনা করবেন এবং দেশের মানুষের ভাগ্যের পরিবর্তন করবেন।

মন্ত্রী বলেন, শেখ হাসিনা গণতন্ত্রের অগ্নিবীণা। শেখ হাসিনার নেতৃত্বে বাংলাদেশ এগিয়ে যাচ্ছে। শেখ হাসিনার জাদুকরী নেতৃত্বের কারণে বাংলাদেশ আয়তনের দিক থেকে ৯২তম হয়েও উৎপাদনের দিক থেকে বিশ্বের প্রথম এক থেকে পাঁচ নম্বরের মধ্যে রয়েছে। অনেক রাজনৈতিক নেতা প্রধানমন্ত্রীর উন্নয়ন অগ্রযাত্রার বিরুদ্ধে অনেক কথা বলেন কারণ দেশটা যে শেখ হাসিনার নেতৃত্বে বদলে গেলো সেটা তাদের পছন্দ হয়না।

মন্ত্রী আরো বলেন, পদ্মা সেতু উদ্বোধন হওয়ায় পার্বত্য চট্টগ্রামের পাহাড়ের চূড়ায় কিংবা দেশের শেষপ্রান্ত পঞ্চগড়ে বসবাসকারী জনগোষ্ঠীও খুশি। এমনকি মার্কিন যুক্তরাষ্ট্র, বিশ্ব ব্যাংক, পাকিস্তান পদ্মা সেতু উদ্বোধনকে অভিনন্দন জানিয়েছে কিন্তু বিএনপি অভিনন্দন জানাতে পারেনি।

মন্ত্রী বলেন, অনেকে শ্রীলঙ্কার পরিস্থিতি বাংলাদেশেও হতে পারে এ গুজব রটানোর চেষ্টা করছে। কয়েকদিন আগে কানাডা ভিত্তিক সংবাদ মাধ্যম ব্লুমবার্গ একটি তালিকা প্রকাশ করেছে। করোনা এবং রাশিয়া-ইউক্রেন যুদ্ধের কারনে ঝুঁকিতে আছে এমন ২৫টি দেশের নাম সেই তালিকায় প্রকাশ হয়েছে। সেখানে ইউরূপের অনেকগুলো দেশের নাম আছে কিন্তু বাংলাদেশের নাম নেই।

চট্টগ্রাম মহানগর আওয়ামী লীগের ভারপ্রাপ্ত সভাপতি মাহতাব উদ্দিন চৌধুরীর সভাপতিত্বে চট্টগ্রাম সিটি কর্পোরেশনের সাবেক মেয়র ও চট্টগ্রাম মহানগর আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক আ জ ম নাছির উদ্দীন, সহসভাপতি নঈম উদ্দিন প্রমূখ বক্তব্য রাখেন এবং মহানগর আওয়ামী লীগ ও ওয়ার্ড পর্যায়ের নেতা কর্মীসহ বিভিন্ন শ্রেণী পেশার মানুষ এসময় উপস্থিত ছিলেন।

নিউজটি শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published.

3 × 4 =

এ জাতীয় আরো খবর..