শুক্রবার, ১২ অগাস্ট ২০২২, ০৫:৪৫ অপরাহ্ন

অভিনেতা তৌফিক ডলার দীর্ঘ ১৫ বছর পরে আবার কুষ্টিয়ার মঞ্চে

আবুল কালাম আজাদ, CEO, অনুভুতি টিভি
  • আপডেট টাইম : বৃহস্পতিবার, ২৫ ফেব্রুয়ারী, ২০২১
  • ৫৫৮ বার পঠিত

অভিনেতা তৌফিক ডলার দীর্ঘ ১৫ বছর পরে আবার কুষ্টিয়ার মঞ্চে। জিন্না হক’র সোনাবিবির শাড়ী নাটকে অভিনয় করছেন। দীর্ঘ ১৫ বছর পরে আবার কুষ্টিয়ার মঞ্চে জিন্না হক’র সোনাবিবির শাড়ী নাটকে অভিনয় করছেন অভিনেতা তৌফিক ডলার। আগামী  ২৭ ফেব্রুয়ারী ২০২১ কুষ্টিয়া পাবলিক লাইব্রেরী মঞ্চে কুষ্টিয়ার অন্যতম খ্যাতিমান সাংস্কৃতিক ব্যক্তিত্ব নূপুর কুষ্টিয়ার প্রতিষ্ঠাতা জিন্না হক -এর ৭ম মৃত্যু বার্ষিকী স্মরণে আয়োজিত  আলোচনা ও  নাট্যানুষ্ঠান -২০২১ এ মঞ্চস্ত্ব হছে পঞ্চ জেলা নাট্য উৎসবের প্রথম স্থান অধীকারী জিন্না হক’র নাটক সোনাবিবির শাড়ী, এই নাটকের শুরুর দিকে বৃদ্ধ চরিত্রে অভিনয় করেছিলেন বর্তমান তিনি এই নাটকের রিয়াজ ফকির চরিত্রটিতে অভিনয় করছেন।

তৌফিক ডলার নামে পরিচিত তিনি, পুরো নাম মোঃ তৌফিকুজ্জামান মিয়া (ডলার) পিতাঃ মৃত কামরুজ্জামান মিয়া মাতাঃ মিসেস রিনি জামান গ্রামঃ উত্তর মির্জাপুর উপজেলাঃ শৈলকুপা জেলাঃ ঝিনাইদহ মিয়া বাড়ি,  জন্ম কুষ্টিয়া জেলার কুমারখালী উপজেলার গোবরা গ্রামে নানা বাড়িতে। বিবাহিত জীবনে তার স্ত্রী, এক ছেলে ও এক মেয়ে রয়েছে। ছোট বেলা থেকেই কুষ্টিয়া শহরেই তার বেড়ে ওঠা, লেখাপড়া ও থিয়েটার চর্চা।  দুই ভাই এর মধ্যে বড়, হিসাব বিজ্ঞানে মাস্টার্স করে ঢাকাতে যান চাকরির সন্ধানে, সেখানে গিয়ে তিনি প্রথমে সহকারী হিসাব রক্ষক পদে চাকুরী জীবন শুরু করে জি.এম পর্যন্ত পদ অর্জন করে পরবর্তীতে মার্কেটিং এ কসমেটিকস কোম্পানির হেড অফ মার্কেটিং এ কাজ করতেন। আর পাশাপাশি নাটক সিনেমাতে অভিনয় করতেন। ছোট বেলা থেকে তিনি প্রথমে বাড়ির অনুষ্ঠানে, গ্রামে, পাড়া মহল্লায় অভিনয় করতেন পরবর্তীতে ১৯৯০ সাল থেকে জিন্না হকের নূপুর কুষ্টিয়া থিয়েটারের সাথে যুক্ত হউন। তিনি একজন শক্তিমান অভিনেতার পাশাপাশি ভালো নাট্য কর্মী ও নাট্য সংগঠকও বটে। তার অভিনিত জিন্না হকের সোনা বিবির শাড়ী, কালান্তর, এক যে ছিলো কুটনি বুড়ি, মানুষ, ভাঙ্গামেলা, সত্য বল্রে মনা, ঘটনা দুর্ঘটনা, লালিম হকের অভিমানী চন্দরা সহ শতাধিক মঞ্চায়ন রয়েছে। তিনি বর্তমানে মঞ্চের পাশাপাশি টেলিভিশন নাটক, বিজ্ঞাপন ও সিনেমাতে অভিনয়, সহ নির্দেশনা, শিল্প নির্দেশনায় কাজ করেন। তিনি অভিনয় শিল্পী সংঘের নিয়মিত সদস্য।  তার অভিনিত প্রথম টেলিভিশন নাটক বিটিভিতে নাসিম আহমেদ এর ইতিহাস কথা কয় নাটকে মুক্তিযোদ্ধা চরিত্রে। এরপর তিনি তার উল্লেখ যোগ্য নাটক বিষ চোখ, প্রেম তরনীর মাঝি, কালো পদ্ম, ছেড়া দ্বীপ, সময়ের গল্প, শাহিনা হোতা (ক্রাইম), ছুটির নিমন্ত্রণে,রক্তের ঋণ, বলদা হিরো,ময়নার ভালোবাসা, মুনীরা হোতা (ক্রাইম), নীল নাগরিক সহ অনেক একক ও  ধারাবাহিক নাটকে অভিনয় করেন। তার অভিনিত ও সহ শিল্প নির্দেশনায় বাপজানের বায়োস্কোপ সিনেমাটি জাতীয় চলচ্চিত্র পুরষ্কার পায় ৮ টি বিভাগে ৯টি। বর্তমানে তিনি স্যুটিং শেষ করেছেন শফিউল আযম শফিকের মুক্তিযুদ্ধের চলচ্চিত্র উদীয়মান সূর্য,  সেখানে তিনি অভিনয়ের পাশাপাশি, শিল্প নির্দেশক ও সহকারী পরিচালক হিসেবেও কাজ করছেন। তার অভিনয়ের সুনিপুনতা দিয়ে তিনি দর্শকদের  হৃদয়ের মনি কোঠায় জায়গা করে নিয়েছেন।

নিউজটি শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published.

এ জাতীয় আরো খবর..